ঢাকা, ১৪ জুলাই, ২০২৪ | আষাঢ় ২৯ ১৪৩১
ঢাকা, ১৪ জুলাই, ২০২৪       
Shruhid Tea

মধ্য রাতে ভেসে উঠলো কলেজ ছাত্র ফারদিনের মরদেহ

ফরিদপুর প্রতিনিধি বঙ্গবাণী

প্রকাশিত: ১২:৫১, ৫ জুলাই ২০২৪

মধ্য রাতে ভেসে উঠলো কলেজ ছাত্র ফারদিনের মরদেহ

ছবি সংগৃহীত

নদীতে তলিয়ে যাওয়ার প্রায় ৩২ ঘন্টা পর পাওয়া গেছেক লেজ ছাত্র ফারদিনের মরদেহ। ফরিদপুর শহরের টেপাখোলা স্লুইসগেট সংলগ্ন কুমার নদ থেকে মরদেহটি উদ্ধার করে স্থানীয়রা। বৃহস্পতিবার (৪ জুলাই) দিবাগত রাত ১টার দিকে ফারদিনের মরদেহ পানিতে ভাসতে দেখে স্থানীয়রা।

পরে নৌকায় করে তারা মরদেহ উদ্ধার করে পাড়ে নিয়ে আসে।

এর আগে বুধবার বিকেলে  ফরিদপুর শহরের টেলাখোলা মদনখালী স্লুইসগেট এলাকায় গোসলে নেমে ফারদিন নামে এক কলেজছাত্র নিখোঁজ হয়। নিখোঁজ ফারদিন সরকারি ইয়াছিন কলেজের দ্বাদশ শ্রেণির শিক্ষার্থী। সে শহরের চরকমলাপুর বালুর মাঠ এলাকার সিরাজ শেখের ছেলে। 

ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি দল বুধবার বিকেল ৬টার দিকে খবর পেয়ে স্লুইসগেট এলাকায় উদ্ধার অভিযানে যায়। পানির স্রোত বেশি ছিল। গেট কিছুটা বন্ধ করে স্রোত কমিয়ে তাকে খোঁজার চেষ্টা করা হয়। ঘণ্টাব্যাপী খোঁজার পর সন্ধ্যা নেমে আসায় উদ্ধার কার্যক্রম সমাপ্ত করে।

এরপর ফায়ার সার্ভিস বৃহস্পতিবার সকাল ৭টা থেকে দুইজন ডুবুরীসহ ৫ জনের একটি টিম উদ্ধার অভিযান চালিয়ে সন্ধ্যা পর্যন্ত ফারদিন এর খোঁজ পায়নি।

ঘটনার দিন নিখোঁজ ফারদিনের মামাতো ভাই ফয়সাল জানায়, দুই বন্ধু বিকেলে কোচিং এ গিয়েছিল। সেখান থেকে তারা স্লুইসগেটে এসে গোসলে নামে। পানির স্রোতে দুজনেই ডুবে যায়। একজন উদ্ধার হলেও ফারদিনকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না।
 প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, দুটি ছেলে পুরাতন স্লুইসগেটের নিচের দিকে র‍্যালিংয়ের পাশে সাইকেল ও ব্যাগে রেখে ওপর থেকে লাফ দিয়ে গোসল করতে থাকে। হঠাৎ তাদের পানির স্রোতে হাবুডুবু খেতে দেখা যায়। এসময় স্থানীয়রা বাঁশ ও দড়ি ফেলে একজনকে টেনে উপরে তুলে। অপরজন পানির তীব্র স্রোতে ডুবে যায়।

বঙ্গবাণীডটকম /এমএস

সারাদেশ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত